৩০ মে ২০২৪, বৃহস্পতিবার, ১২:৫১:২৩ পূর্বাহ্ন


পর্নতারকাকে ঘুষ মামলায় নিউ ইয়র্কের আদালতে ডোনাল্ড ট্রাম্প
আন্তর্জাতিক ডেস্ক :
  • আপডেট করা হয়েছে : ১৫-০৪-২০২৪
পর্নতারকাকে ঘুষ মামলায় নিউ ইয়র্কের আদালতে ডোনাল্ড ট্রাম্প পর্নতারকাকে ঘুষ মামলায় নিউ ইয়র্কের আদালতে ডোনাল্ড ট্রাম্প


আমেরিকার প্রথম প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট হিসাবে ফৌজদারি মামলায় বিচারের মুখোমুখি হলেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। সোমবার সকালে (স্থানীয় সময়) নিউ ইয়র্কের আদালতে শারীরিক সম্পর্ক নিয়ে মুখ না খুলতে পর্নতারকা স্টর্মি ড্যানিয়েলসকে ঘুষ দেওয়ার অভিযোগের মামলার শুনানিতে হাজির হয়েছেন তিনি।

স্টর্মিকে এক লক্ষ ৩০ হাজার ডলার ‘ঘুষ’ দেওয়ার ফৌজদারি মামলায় গত বছরের মার্চে ট্রাম্পের বিরুদ্ধে চার্জ গঠন করেছিল নিউ ইয়র্কের গ্র্যান্ড জুরি। গত বছরের এপ্রিলে তাঁকে ওই মামলায় জিজ্ঞাসাবাদ এবং গ্রেফতারও করা হয়েছিল। নিউ নিউ ইয়র্কের আদালতে ট্রাম্পের শুনানি।

যদিও গ্রেফতারের পরেই জামিনে মুক্তি পেয়েছিলেন রিপাবলিকান পার্টির প্রবীণ নেতা। রাজনৈতিক পর্যবেক্ষক তথা হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের কেনেডি স্কুলের ইতিহাস ও জননীতি বিভাগের অধ্যাপক অ্যালেক্স কিসার বলেন, ‘‘আমেরিকার ইতিহাসে এটি নজিরবিহীন ঘটনা। এর সঙ্গে তুলনীয় কিছু নেই।’’

প্রসঙ্গত, পর্নতারকা স্টর্মির সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কের পরে ২০১৬ সালে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের সময় তাঁর মুখ বন্ধ রাখতে ট্রাম্প ঘুষ দিয়েছিলেন বলে অভিযোগ। ওই টাকা দেওয়ার বিষয়টি গোপন রাখতে ট্রাম্প তাঁর ব্যবসায়িক সংস্থার নথিপত্রে জালিয়াতি করেছিলেন বলেও অভিযোগ। ট্রাম্পের প্রাক্তন আইনজীবী মাইকেল কোহেন দাবি করেছিলেন, তিনিই ট্রাম্পের হয়ে স্টর্মি এবং অন্য এক মডেল কারেনের কাছে অর্থ পৌঁছে দেওয়ার কাজ করেছিলেন।

যদিও ট্রাম্প গোড়া থেকেই ওই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন। সে সময় ম্যানহাটন ডিস্ট্রিক্ট অ্যাটর্নি অ্যালভিন ব্র্যাগ অভিযোগের তদন্ত করেছিলেন। তিনি ডেমোক্র্যাট দলের সদস্য। ফলে ‘রাজনৈতিক চক্রান্তের’ অভিযোগ তুলেছে ট্রাম্প শিবির। চলতি বছরের নভেম্বরে আমেরিকার প্রেডিডেন্ট নির্বাচন। ইতিমধ্যেই রিপাবলিকান ককাসে ‘প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী’ হিসাবে নির্বাচিত হয়েছেন ট্রাম্প। কিন্তু এই ফৌজদারি মামলা তাঁর রাজনৈতিক ভবিষ্যৎ অনিশ্চিত করে তুলতে পারে বলে মনে করছেন আইন বিশেষজ্ঞদের একাংশ।