২৯ মে ২০২৪, বুধবার, ১১:৪৬:১৭ অপরাহ্ন


ডাকাতির প্রস্তুতিকালে মতিহারের “মিজু গ্যাঁং” এর মূলহোতা-সহ ১১ জন গ্রেফতার
মাসুদ রানা রাব্বানী, রাজশাহী:
  • আপডেট করা হয়েছে : ১৫-০৫-২০২৪
ডাকাতির প্রস্তুতিকালে মতিহারের “মিজু গ্যাঁং” এর মূলহোতা-সহ ১১ জন গ্রেফতার ডাকাতির প্রস্তুতিকালে মতিহারের “মিজু গ্যাঁং” এর মূলহোতা-সহ ১১ জন গ্রেফতার


রাজশাহী মহানগরীতে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে “মিজু গ্যাঁং” এর মূলহোতা-সহ ১১ জন গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-৫।

বুধবার দিনগত রাত দেড় টায়  মহানগরীর চন্দ্রিমা থানাধীন ছোটবনগ্রাম এলাকায় অস্ত্র-শস্ত্রে সজ্জিত হয়ে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে তাদের গ্রেফতার করা হয়। এ সময় ধারালো হাসুয়া ১৮ টি, ধারালো তলোয়ার -৭টি, (৩) চাকু ২টি, কাটার হাতল ৩টি, চাইনিজ কুড়াল ১টি, সিমেন্টের ব্লক-৫৩টি (যাহা হ্যান্ড গ্রেনেড হিসেবে ব্যবহৃত), খেলনার পিস্তল ১টি, মোটর সাইকেল- ৩টি ও মোবাইল- ১২ জব্দ করা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হলো: “মিজু গ্যাঁং” এর লিডার মোঃ মিজানুর রহমান (৩০), সে নগরীর মতিহার থানার মতিহার থানার খেঁাজাপুর এলাকার আজিম উদ্দিন, মোঃ বকুল (৩৮) একই এলাকার মৃত মুকুলের ছেলে, মোঃ ঈমান (২৪), একই থানার ডাঁসমারী পূর্বপাড়া এলাকার মোঃ বাবলু হোসেনের ছেলে, মোঃ শাকিব (২৫), সে ধরমপুর পূর্বপাড়া এলাকার মোঃ আমজাদ হোসেনের ছেলে, মোঃ রবিন (২০), সে মোঃ আঃ রাজ্জাকের ছেলে, মোঃ মোঃ রাব্বি (২৪), সে মোঃ আসলাম আলীর ছেলে, মোঃ অনিক (২১), সে মোঃ আঃ খালেকের ছেলে, মোঃ ইয়ামিন আলী (২৮), সে চরশ্যামপুর মোঃ আঃ মোত্তালেবের ছেলে, মোঃ আমান (২২), সে ধরমপুর এলাকার মোঃ শমসের আলীর ছেলে, মোঃ বিজয় (১৭), সে ধরমপুর পূর্বপাড়া এলাকার মোঃ নাজিম উদ্দিনের ছেলে, মোঃ বিপ্লব আলী (২২), সে চারঘাট থানার শিমুলিয়া এলাকার মোঃ সাজাহান আলীর ছেলে।

বুধবার দুপুরে র‌্যাব-৫, রাজশাহীর মোল্লাপাড়া ক্যাম্পের পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়।

র‌্যাব জানায়, গ্রেফতারকৃতরা সকলেই “মিজু গ্যাঁং” এর সদস্য। তারা আগ্নেয়াস্ত্র ও দেশীয় অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে মহানগর এলাকায় বিভিন্ন স্থানে চাঁদাবাজি, জমিদখল এবং কোন ব্যক্তি জমি ক্রয়, বাড়ী নির্মাণসহ যে কোন ব্যবসায়ীক প্রতিষ্ঠান খুললে তাদেরকে চাঁদা না দিয়ে কোন কাজ করতে পারে না। এছাড়াও মহানগরীর বিভিন্ন পয়েন্টে দলবদ্ধ ভাবে ছিনতাই, এলাকায় আধিপত্য বিস্তারের জন্য আগ্নেয়াস্ত্র ও দেশীয় অস্ত্রে সজ্জিত হয়ে মহড়া দিয়ে থাকে। টেন্ডারবাজী ও সরকারি কাজে বাধা দান, সংঘবদ্ধভাবে মেয়েদের উত্যক্ত করা, মাদক সেবনসহ বিভিন্ন অপকর্মে লিপ্ত। তাদের ভয়ে কেউ মুখ খুলতে সাহস পায় না। তাদের অপরাধের পরিধি বাড়তে বাড়তে মঙ্গলবার রাতে রাজশাহী মহানগরীর বিভিন্ন এলাকায় ডাকাতির উদ্দেশ্যে অস্ত্র—শস্ত্রে সজ্জিত হয়ে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে র‌্যাবের গোয়েন্দা দল গোপন তথ্যের ভিত্তিতে জানতে পেরে র‌্যাব—৫, রাজশাহীর সিপিএসসি, মোল্লাপাড়া ক্যাম্পের একটি অভিযানিক দল অভিযান পরিচালনা করে রাজশাহী মহানগরীর মতিহার থানাধীন ধরমপুর পূর্বপাড়া এলাকার পলাতক আসামী মোঃ রমজানের (৩০) হাফ বিল্ডিং ব্যক্তিগত ক্লাব ঘর হতে দেশীয় অস্ত্রসহ কিশোর গঁ্যাংয়ের মূলহোতাসহ ১১ জনকে গ্রেফতার করে। তবে কিশোর গ্যাঁংয়ের অন্যতম সদস্য মোঃ রমজান আলী রাতের আধারে দৌড়ে পালিয়ে যায়।  জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃতরা ডাকাতির প্রস্তুতির বিষয়টি স্বীকার করে। পরে তাদের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে আরও ২টি স্থান থেকে বিপুল পরিমান ধারালো দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার হয়। 

এ ব্যপারে গ্রেফতার আসামীদের বিরুদ্ধে মহানগরীর মতিহার থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। 

বুধবার সকালে তাদের বিজ্ঞ আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।