২৩ মে ২০২২, সোমবার, ১১:১৯:৩৬ পূর্বাহ্ন


লাগাতার পতনের পর তৃতীয় দিনেও ঊর্ধ্বমুখী শেয়ারবাজার
অনলাইন ডেস্ক
  • আপডেট করা হয়েছে : ২১-০৪-২০২২
লাগাতার পতনের পর তৃতীয় দিনেও ঊর্ধ্বমুখী শেয়ারবাজার ফাইল ফটো


শেয়ারদরে নিচের সার্কিট ব্রেকার ২ শতাংশের পরিবর্তে ৫ শতাংশ করার সিদ্ধান্ত বৃহস্পতিবার কার্যকর হয়েছে। তবে এর নেতিবাচক কোনো প্রভাব লেনদেনের প্রথম ঘণ্টায় দেখা যায়নি। উল্টো লাগাতার পতনের পর টানা তৃতীয় দিনে ঊর্ধ্বমুখী ধারায় চলতে দেখা গেছে শেয়ারবাজারে।

বৃহস্পতিবার (২১ এপ্রিল) বেলা ১১টায় দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) লেনদেনের প্রথম ঘণ্টা শেষে মাত্র ১৪ কোম্পানির শেয়ার ২ শতাংশের বেশি দর হারিয়ে কেনাবেচা হতে দেখা গেছে।

এগুলো হলো- প্রাইম ব্যাংক, প্রিমিয়ার ব্যাংক, আইসিবি ইসলামিক ব্যাংক, ফ্যামিলিটেক্স, কাট্টলী টেক্সটাইল, মার্কেন্টাইল ইন্স্যুরেন্স, রেনউয়িক যজ্ঞেশ্বর, ইউনাইটেড ইন্স্যুরেন্স, বিআইএফসি, সোনারগাঁও টেক্সটাইল, আরএসআরএম স্টিল, নিটল ইন্স্যুরেন্স, নর্দার্ন ইন্স্যুরেন্স এবং জেমিনি সী ফুডস। এর মধ্যে লভ্যাংশ সংক্রান্ত রেকর্ড ডেট শেষে কেনাবেচা হচ্ছে প্রিমিয়ার ব্যাংকের শেয়ার।

এ সময় আজকের সার্কিট ব্রেকারের সর্বনিম্ন দরে (৫ শতাংশ বা প্রায় ৫ শতাংশ কম দরে) কেনাবেচা হচ্ছিল মাত্র চার কোম্পানির শেয়ার। এগুলো হলো- ফ্যামিলিটেক্স, আইসিবি ইসলামিক ব্যাংক, প্রিমিয়ার ব্যাংক এবং প্রাইম ব্যাংক।

সার্বিক হিসাবে লেনদেনের প্রথম ঘণ্টা শেষে ডিএসইতে ২৩৬ কোম্পানির শেয়ার দর বেড়ে কেনাবেচা হচ্ছিল। দর হারিয়ে কেনাবেচা হচ্ছিল ৭৭ শেয়ার এবং দর অপরিবর্তিত অবস্থায় কেনাবেচা হতে দেখা যায় ৫০ শেয়ারকে।

বেশিরভাগ শেয়ার দর বেড়ে কেনাবেচা হওয়ার প্রভাব মূল্য সূচকে ছিল। প্রধান মূল্য সূচক ডিএসইএক্স ২০ পয়েন্ট বেড়ে বেলা ১১ টায় ৬৬২৬ পয়েন্টে অবস্থান করছিল। যদিও লেনদেনের প্রথম ৩৭ মিনিট শেষে টানা ৩৭ পয়েন্ট বেড়ে সূচকটি ৬৬৪৩ পয়েন্ট পর্যন্ত উঠেছিল।

লেনদেনের প্রথম ঘণ্টায় ডিএসইতে ২০৯ কোটি টাকার শেয়ার কেনাবেচা হয়েছে। ৫ শতাংশের ওপর দর বেড়ে দরবৃদ্ধির শীর্ষে অবস্থান করছিল জেএমআই হসপিটাল রিক্যুইজিট, ইউনাইটেড ইন্স্যুরেন্স, ঢাকা ইন্স্যুরেন্স, রিলায়েন্স ইন্স্যুরেন্স, ইস্টার্ন ল্যুব্রিকেন্টস, প্রগ্রেসিভ লাইফ ও আইপিডিসির শেয়ার।

২০ কোটি টাকার লেনদেন নিয়ে শীর্ষে অবস্থান করছিল- বেক্সিমকো লিমিটেড। ১০ থেকে ১৮ কোটি টাকা লেনদেন নিয়ে এর পরের অবস্থানে ছিল- সোনালী পেপার, জেএমআই হসপিটাল রিক্যুইজিট এবং বেক্সিমকো লিমিটেড এবং আইপিডিসি।

রাজশাহীর সময়/এএইচ