১৫ অগাস্ট ২০২২, সোমবার, ০৬:৪৯:১৮ পূর্বাহ্ন


হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার প্রবণতা! ৩ বছর আগে থেকেই শরীর বড় ইঙ্গিত দিতে থাকে, বুঝবেন এই ভাবেই
ডা. মো. মকসেদ আলী :
  • আপডেট করা হয়েছে : ২৫-০২-২০২২
হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার প্রবণতা! ৩ বছর আগে থেকেই শরীর বড় ইঙ্গিত দিতে থাকে, বুঝবেন এই ভাবেই হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার প্রবণতা! ৩ বছর আগে থেকেই শরীর বড় ইঙ্গিত দিতে থাকে, বুঝবেন এই ভাবেই


দিনের পর দিন ভারতে হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার সংখ্যা ক্রমেই বেড়ে চলেছে এর একটাই কারণ হল অসংযত জীবনযাপন তেল মশলা যুক্ত খাবার যুবদেরও হার্টের সমস্যা তৈরি করতে পারে।

তবে এই সমস্যা অনেক সময় থাকতেই চেনা যেতে পারে ৷ বিজ্ঞানীরা হৃদরোগের সমস্যা থেকে বাঁচতে নানান পদ্ধতি বের করেছেন ৷ জানতে পারা যায় হার্ট অ্যাটাকের  ঝুঁকি আছে সেটাই বুঝতে পারা যায়।

এটি এমন এক সমস্যা যা মৃত্যু পর্যন্ত ঘটাতে পারে ৷ তবে এমন এক টেস্ট আছে যা হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার ফলে মৃত্যু পর্যন্ত কম করতে পারে ৷

বিজ্ঞানীরা এমন কিছু মানুষের সি-রিঅ্যাক্সিভ টেস্ট করেছেন যাঁদের বহুদিন ধরেই হার্টের সমস্যা আছে ৷ 

ট্রোপোপিন এমনই এক গুরুত্বপূর্ণ প্রোটিন যা হৃদয়ের বিভিন্ন অংশ ক্ষত হলে রক্ষক্ষরণের ফলে নির্গত হয় এই প্রোটিন ৷  

একটি রিপোর্টে জানতে পারা গিয়েছে আড়াই লক্ষেরও বেশি রোগীর মধ্যে যাঁদের সিআরপি লেবেল বেশি থাকে তাঁদের ট্রপোনিন টেস্ট পজিটিভ হয়েছে ৷ তাঁদের আগামী ৩ বছরে মৃত্যুর ঝুঁকি ৩৫ শতাংশ বেশি ৷ 

যদি সঠিক সময়ে সতর্ক না হয় এবং অ্যান্টি ইমপ্লেমেটরিজ ওষুধের সেবন করলে লক্ষ লক্ষ মানুষকে বাঁচানো যেতে পারে ৷ 

ইম্পিরিয়াল কলেজ অফ লন্ডনের চিকিৎসক ডঃ রমজি খামিজ জানিয়েছেন এই পরীক্ষার খোঁজ এমন সময়ে হয়েছে য়খন এই ধরনের রোগ গভীর ভাবে ভাবতে বাধ্য করেছে ৷ 

এই রিসার্চের জন্য অর্থ যোগানকারী ব্রিটিশ হার্ট ফাউন্ডেশন এক অধ্যাপক জেমস লিপার জানিয়েছেন এটি চিকিৎসকদের মেডিক্যাল টুলের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি টুল ৷

একটি স্টাডিতে বলা হয়েছে দিনের মধ্যে ৪ ঘণ্টা যদি সক্রিয় থাকা যায় তবে হৃদরোগে আক্রান্ত ৪৩ শতাংশ পর্যন্ত কম হয়।

আমেরিকার এক সেন্টার ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন হার্ট অ্যাটাকের বেশ কিছু লক্ষণ চিহ্নিত করা হয়েছে। 

বুকে ব্যাথা বা চরম উৎকণ্ঠা সব থকে বেশি গুরুত্বপূর্ণ হয়ে থাকে ৷ দুর্বলতা, গল, কোমরে ব্যাথাও খারাপ কিছুর ইঙ্গিত দিয়ে থাকে ।

মানসিক উৎকণ্ঠা বা কাঁধে ব্যাথা হলেও সময় থাকতে থাকতে সতর্ক থাকাটা প্রয়োজন ৷ পরে প্রবল সমস্যা আসতে পারে ।

রাজশাহীর সময় / এম জি