০৩ Jul ২০২২, রবিবার, ১১:৪৩:০৪ পূর্বাহ্ন


ভাষা শহীদদের প্রতি রামেবি উপাচার্যের শ্রদ্ধা নিবেদন
স্টাফ রিপোর্টার
  • আপডেট করা হয়েছে : ২১-০২-২০২২
ভাষা শহীদদের প্রতি রামেবি উপাচার্যের শ্রদ্ধা নিবেদন ভাষা শহীদদের প্রতি রামেবি উপাচার্যের শ্রদ্ধা নিবেদন


মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে রাজশাহী মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ শহীদ মিনারে ভাষা আন্দোলনে শহীদদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. এ জেড এম মোস্তাক হোসেন।

সোমবার (২১ ফেব্রুয়ারী) রাত ১২.০১ মিনিটে শহীদদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়।

সকালে সূর্যদয়ের সাথে সাথে জাতীয় পতাকা ও কালো পতাকা উত্তোলসহ বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয় ও সকাল ১০টায় রামেবির কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দের অংশ গ্রহণে মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের আলোচনা সভা  অনুষ্ঠিত হয়।  আলোচনা সভায়  সভাপতিত্ব করেন উপাচার্য অধ্যাপক ডা. এ জেড এম মোস্তাক হোসেন। 

এ আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে উপাচার্য অধ্যাপক ডা. এ জেড এম মোস্তাক হোসেন বলেন, ১৯৫২ সালের একুশে ফেব্রুয়ারি মাতৃভাষা বাংলার মর্যাদা রাখতে গিয়ে বুকের তাজা রক্ত ঢেলে দিয়েছিলেন রফিক, জব্বার, সালাম, বরকত ও সফিউররা। পৃথিবীর ইতিহাসে মাতৃভাষার জন্য রাজপথে বুকের রক্ত ঢেলে দেয়ার প্রথম নজির এটি। সেদিন তাদের রক্তের বিনিময়ে শৃঙ্খলযুক্ত হয়েছিল বর্ণমালা ও মায়ের ভাষা, এর মাধ্যমে বাঙালি জাতিসত্তা বিকাশের যে, সংগ্রামের সূচনা হয়েছিল তা মুক্তিযুদ্ধের গৌরবময় পথ বেয়ে স্বাধীন বাংলাদেশের অভ্যুদয়ের মধ্য দিয়ে চূড়ান্ত পরিণতি লাভ করে। একুশে ফেব্রুয়ারি বাঙালি জাতিসত্তার শেকড়ের অনুপ্রেরণার দিন। এই দিনটি ঐতিহ্যের পরিচয়কে দৃঢ় করেছে। বাংলা ভাষার রাষ্ট্র হিসেবে বাংলাদেশ বিশ্বের দরবারে সম্মানের আসন লাভ করেছে। 

তিনি আরও বলেন ফেব্রুয়ারি রক্ত ঝরা পথ বেয়েই অর্জিত হয় মাতৃভাষা বাংলার স্বীকৃতি এবং এরই ধারাবাহিকতায় ১৯৭১ সালে আসে বাঙ্গালীর চিরকাঙিক্ষত স্বাধীনতা যার নেতৃত্ত্ব দিয়েছেন সর্বকালের শ্রেষ্ট বাংঙ্গালী জাতীর পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। 

এ সময় উপস্থিত ছিলেন রামেবির কোষাধ্যক্ষ প্রফেসর ড. রুস্তম আলী আহমেদ, রামেবির রেজিস্ট্রার অধ্যাপক ডা. মোহা. আনোয়ারুল কাদের, রামেবির পরিচালক (প.উ.) ইঞ্জিনিয়ার মো: সিরাজুম মুনির, পরিচালক ( অ.হি.) ডা. মো: জাকির হোসেন খোন্দকার, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক অধ্যাপক ডা. মো. আনোয়ার হাবিব, কলেজ পরিদর্শক অধ্যাপক ডা. জাওয়াদুল হক, উপ- পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক ডা. মো: সারওয়ার জাহান, উপ- কলেজ পরিদর্শক ডা. মোহাম্মদ মেহেরওয়ার হোসেন, সহকারী রেজিস্ট্রার মো: রাসেদুল ইসলাম, উপাচার্যের একান্ত সচবি ইসমাঈল হোসেন,  পি ও মো: আব্দুস সোবহান, সহকারী কলেজ পরিদর্শক মো: নাজমুল হোসাইন, মোসা: সিমা আক্তার, মেহেদী মাসুদ সানি , মো: আশরাফুল ইসলাম, মো: মেহেদী হাসান ,নাজমুল আলম ইমন, মো: গোলাম রহমানসহ রামেবির সকল কর্মকর্তা কর্মচারীবৃন্দ।

রাজশাহীর সময় /এএইচ