২৯ জানুয়ারী ২০২৩, রবিবার, ০৮:৪৬:৪৩ অপরাহ্ন


মদ্যপান করে ঘুমালে শরীর যেভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হয়
ফারহানা জেরিন
  • আপডেট করা হয়েছে : ০৫-১২-২০২২
মদ্যপান করে ঘুমালে শরীর যেভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হয় ফাইল ফটো


অনেকেই রয়েছেন অতিরিক্ত পরিমাণে মদ্যপান করার পর বাড়ি ফিরে ঘুমিয়ে পড়েন। কিন্তু বিশেষজ্ঞরা জানাচ্ছেন মদ্যপান করে ঘুমালে বড় বিপদ হতে পারে।

বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই দেখা গিয়েছে যে অনেকেই মদ্যপানের পর তাড়াতাড়ি ঘুমাতে চলে যান। কিন্তু সেই ঘুম কি আদৌ স্বাস্থ্যের পক্ষে ভালো? এই নিয়ে রয়েছে নানান প্রশ্ন।

মদ্যপান করার পর ঘুম স্বাস্থ্যকর কেন নয়? গবেষকরা জানাচ্ছেন মদ্যপান করে ঘুমালে প্রথমদিকে ঘুমটা ভালো হয় কিন্তু সময় যত এগিয়ে যেতে থাকে ঘুম তত পাতলা হয়ে আসে। তবে শুধু এটাই নয় আরো নানান সমস্যা মুখোমুখি হতে পারেন তারা

এবার সে বিষয়ে বিস্তারিত জেনে নেওয়া যাক:-

১) ক্লান্তি বেড়ে যায়: বিশেষজ্ঞদের মতে মদ্যপান করে ঘুমালে ক্লান্তি দূর হয় না বরং উল্টো ভেঙে যায়। সেই সাথে বেড়ে যায় হৃদপিন্ডের গতি। যা একটি উদ্বেগের কারণ। সুতরাং জেগে থাকলে শরীর যতটা ক্লান্ত হয়, মদ্যপ অবস্থায় ঘুমালে তার চেয়ে দ্বিগুণ বেশি ক্লান্ত হয়।

২) মস্তিষ্ক বিশ্রাম পায় না: একমাত্র ঘুমের সময় মস্তিষ্ক বিশ্রাম পায়। তবে মদ্যপ অবস্থায় ঘুমালে মস্তিষ্কের ক্লান্তি কাটেনা। যা ভবিষ্যতে আরো খারাপ হয়।

৩) নাক ডাকা বৃদ্ধি পায়: মদ্যপ অবস্থায় ঘুমালে গলার পেশির ওপর তুলনামূলকভাবে চাপ বেড়ে যায়। এর ফলে অনেকের নাক ডাকার পরিমাণ অতিরিক্ত হয়।

৪) হৃদপিন্ডের উপর চাপ বাড়ে: অনেকেই মনে করেন মদ্যপ অবস্থায় ঘুমালে খুব ভালো ঘুম হয়; এই কথাটা একেবারেই সত্যি নয় বরং ঘুম পাতলা হয়। এর ফলে হৃদযন্ত্রের উপর চাপ বাড়ে। এমনকি ঘুমের মধ্যে হৃদরোগের আশঙ্কাও বেড়ে যায়।

৫) জলের অভাব ঘটে: বিশেষজ্ঞদের মতে, মদের কারণেই শরীরে জলের ঘাটতি দেখা দেয়। শরীরের জমা জল বেরিয়ে গিয়ে, শরীরকে শুকিয়ে যায়। এর ফলে পরদিন হ্যাংওভার বা মাথাধরা সহজে কাটতে চায় না।