মঙ্গলবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৮, ০৩:০৩ পূর্বাহ্ন

আ’লীগের সঙ্গে ৩০৭ সাবেক আমলার সংহতি

আ’লীগের সঙ্গে ৩০৭ সাবেক আমলার সংহতি

রাজশাহীর সময় ডেস্ক : আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের বিজয়ের লক্ষ্যে কাজ করার জন্য ৩০৭ জন অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মকর্তা দলটির সঙ্গে সংহতি প্রকাশ করেছেন। প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার সঙ্গে শুক্রবার সন্ধ্যায় গণভবনে সাক্ষাৎকালে অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মকর্তারা এ সংহতি প্রকাশ করেন।

অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মকর্তাদের মধ্যে রয়েছেন- ১৪২ জন সাবেক মুখ্য সচিব, সিনিয়র সচিব, বিভিন্ন কমিশনের চেয়ারম্যান ও সদস্য, রাষ্ট্রদূত, অতিরিক্ত সচিব ও যুগ্ম সচিব।

তাদের মধ্যে আছেন- দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) সাবেক চেয়ারম্যান মো. বদিউজ্জামান, এনার্জি রেগুলেটরি কমিশনের সাবেক চেয়ারম্যান এআর খান, প্রাইভেটাইজেশন কমিশনের সাবেক চেয়ারম্যান মোল্লা ওয়াহিদুজ্জামান, সাবেক মুখ্য সচিব ড. কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী, সাবেক মহা-হিসাব নিয়ন্ত্রক ও নিরীক্ষক মাসুদ আহমেদ ও মো. আবুল কাশেম, সাবেক জ্যেষ্ঠ সচিব মেসবাহ উদ্দিন, মো. মেসবাহ-উল আলম ও ইউনুসুর রহমান এবং সাবেক প্রধান তথ্য অফিসার একেএম শামীম চৌধুরী।

সাবেক সচিবদের মধ্যে আবু তাহের, হেমায়েত উদ্দিন তালুকদার, মাহবুব-উল আলম খান, শৈলেন্দ্র নাথ মজুমদার, আবদুল মালেক মিয়া, দেওয়ান জাকির হোসেন, সুনিল কান্তি বোস, সৈয়দ আলী কবির, শেখ খুরশিদ আলম, আতাহারুল ইসলাম, সমর চন্দ্র পাল, নূরুল হক, আবদুল মান্নান হাওলাদার, এটিকেএম ইসমাইল, শফিকুল আজম, কামরুন্নেছা খানম, মো. মিজানুর রহমান, খন্দকার আসাদুজ্জামান, মো. কাজী আখতার হোসেন, আরাস্তু খান, এমএ কাদের সরকার, ড. চৌধুরী মো. বাবুল হাসান, এএইচএম মাসুদ সিদ্দিকী, মো. আজিজুর রহমান, শফিক আলম মেহেদী, কাজী আখতার উদ্দিন আহমেদ, এএলএম আবদুর রহমান, হুমায়ুন খালিদ, আনোয়ার ফারুক, শাহিন খান, মুনসুর আলী সিকদার, জহুরুল আলম, রীতি ইব্রাহিম, নজরুল ইসলাম খান, ড. খন্দকার শওকত হোসেন, মিকাইল শিপার, খোরশেদ আলম চৌধুরী, এমএ হান্নান, একেএম আমির হোসেন, নূরুন্নবী তালুকদার, ফখরুল ইসলাম, গোলাম রাব্বানী, সিরাজুল ইসলাম, শ্যামল কান্তি ঘোষ, এএম বদরুদ্দোজা, শিরীন আখতার, খন্দকার ইফতেখার হায়দার, কায়কোবাদ হোসেন, আবু মোহাম্মদ মোস্তফা কামাল, নাজমুল ইসলাম, মমতাজ আলা শাকুর আহমেদ, নাজিম উদ্দিন, অশোক মাধব রায়, ড. প্রশান্ত কুমার রায় ও শামসুল হক, এডিবির সাবেক কর্মকর্তা পারভেজ ইমদাদ এবং সরকারি কর্ম-কমিশনের সাবেক সদস্য, কাজী নাসিরুল ইসলাম, মো. ওয়াজেদ আলী খান ও জহুরুল আলম সংহতি প্রকাশ করেন।

এছাড়াও অনুষ্ঠানে আওয়ামী লীগের সঙ্গে সাবেক রাষ্ট্রদূত এটিএম নজরুল ইসলাম, মিজানুর রহমান, মো. আজিজুল হক, গোলাম মোহাম্মদ, মো. আবদুল হান্নান, আতিকুর রহমান, ইখতিয়ার চৌধুরী, ওয়াহিদুর রহমান ও আবদুস সাত্তার সংহতি প্রকাশ করেন।

পুলিশের সাবেক অতিরিক্ত আইজি আবদুল মান্নান, মো. শামসুদ্দোহা খন্দকার, অমূল্য ভূষণ বড়ুয়া ও আবদুল মান্নান, সাবেক ডিআইজি মোস্তাক হোসেন, এএইচএম ফিরোজ কবির, গোলাম মোস্তফা, শাহ আলম শিকদার, মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন, আবদুল জলিল মণ্ডল ও শফিকুর রহমান সংহতি প্রকাশ করেন।

পাশাপাশি স্বাস্থ্য, শিক্ষা, প্রকৌশল, বন, ডাক, পুলিশ, ট্যাক্স, তথ্য, টেলিকম, কাস্টমস ও এক্সাইজ, অডিট ও অ্যাকাউন্টস, রেলওয়ে, খাদ্য ও কৃষি ক্যাডারের ১৬৫ জন অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তাও সংহতি প্রকাশ করেছেন।সূত্র:যুগান্তর।

অনুষ্ঠানের শুরুতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ফুলের তোড়া দিয়ে শুভেচ্ছা জানান অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তারা। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর রাজনীতিবিষয়ক উপদেষ্টা এইচটি ইমাম এবং আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী। সাবেক মুখ্য সচিব ড. কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন।

রাজশাহীর সময় ডট কম০৮ ডিসেম্বর ২০১৮





© All rights reserved © 2018 rajshahirsomoy.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com