মঙ্গলবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৮, ০৮:৩৬ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে নৌকায় ভোট দিন : মেয়রপত্নী রেনী চারঘাটে পোস্টার ছেঁড়াকে কেন্দ্র করে আ’লীগ-বিএনপি’র ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া এই নির্বাচন বাংলাদেশকে রক্ষা করার নির্বাচন রাবিতে মিনু বিএনপি প্রার্থী মঈন খানের নির্বাচনী প্রচারণায় হামলা চালিয়েছে যুবলীগ ও ছাত্রলীগ টুঙ্গীপাড়া থেকে বৃহস্পতিবার ফেরার পথে ৭টি পথসভা করবেন প্রধানমন্ত্রী বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুলের গাড়িবহরে হামলা নির্বাচনে সহিংসতা থেকে সবাইকে দূরে থাকার আহ্বান : মার্কিন রাষ্ট্রদূত জয়পুরহাটের পাঁচবিবিতে ট্রেনের বগি লাইনচ্যুত : বগি লাইনে তোলার চেষ্টা আইএসপিআরের নতুন পরিচালক আবদুল্লা ইবনে জায়েদ রাজশাহী নগরীতে বিএনপি’র অফিসে ভাঙচুর, নৌকায় অগ্নিসংযোগ
‘সৌদি যুবরাজকে নরপিশাচ বলেছিলেন সাংবাদিক খাশোগি’

‘সৌদি যুবরাজকে নরপিশাচ বলেছিলেন সাংবাদিক খাশোগি’

সোমবার ওমরকে পাঠানো ৪০০ খুদেবার্তার বরাতে মার্কিন গণমাধ্যম সিএনএন এ তথ্য জানায়। ওমরের সঙ্গে দীর্ঘ ১০ মাসের কথোপকথনে সৌদি যুবসমাজকে উদ্বুদ্ধ করে প্রশাসনকে জবাবদিহিতার আওতায় আনার পরিকল্পনাও করেন খাশোগি। ইসরাইলের তৈরি স্পাইওয়্যার ব্যবহার করে এসব আলাপচারিতা জানার পরই খাশোগির বিরুদ্ধে বর্বর পদক্ষেপ নেয় সৌদি আরব।

খাশোগি হত্যাকাণ্ড নিয়ে সোমবার বিশেষ একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করে মার্কিন গণমাধ্যম সিএনএন। জামাল খাশোগি ও কানাডায় নির্বাসিত সৌদি রাজপরিবারের আরেক সমালোচক ওমর আবদুল আজিজের মধ্যকার ৪শ’ খুদে বার্তার বরাতে এ প্রতিবেদন প্রকাশ করা হয়। তাদের আলাপে, সৌদি আরবে মানবাধিকার লঙ্ঘন, যুবরাজ মুহাম্মদ বিন সালমানের উচ্ছৃঙ্খলতাসহ বিভিন্ন বিষয় উঠে আসে।

চলতি বছরের মে মাসে সৌদি প্রশাসনের চালানো গণগ্রেফতারের সমালোচনা করতে গিয়ে খাশোগি বলেন, যুবরাজ মুহাম্মদ বিন সালমান যাকে খুশি তাকে হত্যা করছেন। সৈরশাসকের কোনো নীতিনৈতিকতা নেই বলেও মন্তব্য করেন তিনি। যুবরাজকে পশু ও প্যাকম্যান বলেও আখ্যা দেন তিনি।

যুবসমাজকে উদ্বুদ্ধ করার মাধ্যমে সৌদি প্রশাসনকে জবাবদিহিতার আওতার আনার পরিকল্পনা ছিল খাশোগির। লক্ষ্য বাস্তবায়নে সৌদি প্রশাসনের মানবাধিকার লঙ্ঘনের তথ্য ও মোবাইলে ব্যবহার উপযোগী ভিডিওচিত্র নির্মাণের জন্য সাইবার আর্মি গঠনেরও পরিকল্পনা ছিল তাদের।

কানাডায় নির্বাসিত সৌদি নাগরিক ওমর আবদুল আজিজ বলেন, ‘আমার মোবাইল ফোন হ্যাক হয়ে যাওয়াও খাশোগির সঙ্গে যা ঘটেছে তার জন্য অনেকাংশে দায়ী। সত্যিই আমার খুব খারাপ লাগছে। অপরাধবোধ আমাকে কুড়েকুড়ে খাচ্ছে।’

রবিবার স্পাইওয়্যার তৈরিকারক প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক আইন লঙ্ঘনের অভিযোগে মামলা করেন ওমরের আইনজীবী। ওই সফটওয়্যার ব্যবহার করে নির্বাসিত আরো দুই সৌদি নাগরিকের বিরুদ্ধে গোয়েন্দা তৎপরতা চালানো অভিযোগ উঠেছে রিয়াদের বিরুদ্ধে। তাদের একজন অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের কর্মী। গেল সপ্তাহে স্পাইওয়্যার রপ্তানি বন্ধের দাবি জানিয়ে ইসরাইলকে চিঠি দেয় অ্যামনেস্টি।সূত্র:কালের কণ্ঠ।

এদিকে স্পাইওয়্যারের নির্মাতা প্রতিষ্ঠান এনএসও গ্রুপ জানায়, তারা ইসরাইল সরকারের অনুমোদন নিয়ে ব্যবসা করছে।

রাজশাহীর সময় ডট কম০৪ ডিসেম্বর ২০১৮





© All rights reserved © 2018 rajshahirsomoy.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com