বুধবার, ১৬ অক্টোবর ২০১৯, ১০:৪৯ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
বিরাট সংকটের মুখে ভারতীয় ব্যাঙ্কগুলি, সতর্ক করলেন নোবেলজয়ী অভিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায় ভারতে বাবার চেয়ে বেশি বয়সের লোকের কাছে ৫০ হাজার টাকায় বিক্রি নাবালিকাকে, পথের কুকুরদের পেট ভরে মাংস ভাত খাইয়ে জন্মদিন পালন যুবকের রাষ্ট্র শব্দের অর্থ খুঁজছে যোগাযোগ হারানো কাশ্মীর মায়ানমারকে আরও ৫০ হাজার রোহিঙ্গার তালিকা দিল বাংলাদেশ স্ত্রীকে চুম্বনের সময় আটকে গিয়েছিল জিভ, তাই কেটে ফেলতে হয়েছে গয়না বিক্রি করতে চাপ, শ্বশুরবাড়ির মারধরে হাসপাতালে গৃহবধূ বলিউডে যৌন হেনস্তা নিয়ে বিস্ফোরক কৃতী শ্যানন ধর্ষণের বিচার চাওয়ায় পানি-বিদ্যুৎ লাইন কেটে দিল আসামিরা ৪৬ লাখ টাকার রাস্তায় হাত দিলেই উঠে যাচ্ছে কার্পেটিং
বিএনপির এমপিদের একহাত নিলেন গয়েশ্বর!

বিএনপির এমপিদের একহাত নিলেন গয়েশ্বর!

বিএনপির এমপিদের একহাত নিলেন গয়েশ্বর!
ফাইল ফটো

রাজশাহীর সময় ডেস্ক : বিএনপির কারান্তরীণ চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তিতে কোনো আন্দোলন গড়ে তুলতে না পেরে দিকভ্রান্ত হয়ে পড়েছে বিএনপি। সম্প্রতি কারামুক্তির উপায় হিসেবে বিএনপির এমপিরা খালেদা জিয়ার সঙ্গে দেখা করে প্যারোলে মুক্তির প্রসঙ্গ সামনে আনেন। যার দরুন রাজনৈতিক মহলে সমালোচিত হচ্ছে বিএনপি।

যদিও বিএনপির শীর্ষ নেতারা বলছেন, কোনোভাবেই বেগম জিয়ার মুক্তি প্যারোলে নিতে রাজি নয় বিএনপি। এ নিয়ে দলের মধ্যে বাড়ছে বিভ্রান্তি। একপক্ষ বলছে প্যারোল, অন্যপক্ষ বলছে ‘না’।

এমন প্রেক্ষাপটে বিএনপির এমপিদের প্যারোল নিয়ে বালখিল্যে বিরক্তি প্রকাশ করে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন। জানা গেছে, দুর্নীতির দুই মামলায় দণ্ড নিয়ে কারাবন্দী খালেদা জিয়াকে দেখে এসে বিএনপির সাত সংসদ সদস্য তার জামিনের জন্য প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেন। তারা এটাও বলেন যে মুক্তি পেলে খালেদা জিয়া বিদেশে যাবেন।

বিএনপি চেয়ারপারসনের মুক্তির দাবিতে শনিবার (৫ অক্টোবর) জাতীয় প্রেস ক্লাবে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বিরক্তি প্রকাশ করে বলেন, ‘অতি দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে আমাদের দলের সাংসদরা ইতিমধ্যে ম্যাডামের সাথে হাসপাতালে দেখা করেছেন। উনাদেরকে নিয়ে অনেকে অনেক কথা বলছে। উনারা যে খুব বেশি আন্তরিক ম্যাডামের মুক্তির জন্য, সেটা আমাদের সামনে এবং জনগণের সামনে আশ্বস্ত করার চেষ্টা করেছেন। আর সেটি করতে গিয়ে- ম্যাডামের (খালেদা জিয়া) যে আপসহীন উপাধিটা আছে- এটা খারিজ করতে গিয়ে ধরা পড়েছে।’

তিনি আরও বলেন, যে উদ্দেশ্যে তাদের সংসদে পাঠানো হলো তা না করে তারা ম্যাডামের কাছে গিয়ে প্যারোলের বার্তা নিয়ে এসেছেন- এটা তাদের জন্য লজ্জার। তারা অথর্ব রাজনীতির উদাহরণ দিচ্ছে প্রতিনিয়ত। আসলে তাদের নিয়ে কথা বলার মতো আগ্রহও হারিয়ে ফেলেছি আমরা। তাদের কাছে যে প্রত্যাশা জনগণের ছিলো তা ধূলায় মিশিয়ে দিয়েছে। কোথায় তারা মুক্তির জন্য বলিষ্ঠ ভূমিকা পালন করবে, তা না করে তারা প্যারোলের বার্তা নিয়ে এসেছেন। এটি নিতান্তই লজ্জার।

রাজশাহীর সময় ডট কম –০৭  অক্টোবর ২০১৯





© All rights reserved © 2019 rajshahirsomoy.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com