সোমবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০২:৪৩ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
কেরানীগঞ্জে ‍১২ বছরের শিশু অন্তঃসত্ত্বা, খালুর ধর্ষণে ঘুমিয়ে হাঁটেন ইলিয়ানা, ভক্তরা বলছেন নায়িকাকে ভূতে ধরেছে কাশ্মীর নিয়ে পরমাণু যুদ্ধের হুঁশিয়ারি ইমরানের ! ৩০ লাখ ৫০ হাজর টাকাসহ হুন্ডি ব্যবসায়ী আটক রণবীর কাপুর নয়, রণবীর সিংয়ের সঙ্গেই দেখা যাবে আলিয়াকে! পুলিশকে জনগণের মৌলিক অধিকার, মানবাধিকার ও আইনের শাসনকে গুরুত্ব দিতে হবে: প্রধানমন্ত্রী ভাগ-বাটোয়ারা নিয়ে রাব্বানীর ফোনালাপে তোলপাড় বাংলাদেশকে হারিয়ে টি-টোয়েন্টিতে আফগানদের নতুন ইতিহাস জনগণের মনে পুলিশ সম্পর্কে যেন অমূলক ভীতি না থাকে” প্রধানমন্ত্রী বাঘায় ৪ ইউপি নির্বাচনে মনোনয়নপত্র জমাদানকারি সকল প্রার্থীর মনোনয়ন বৈধ
কলা খেলে কি আসলেই ওজন কমে?

কলা খেলে কি আসলেই ওজন কমে?

ফারহানা জেরিন এলমা : কলা খেলে ওজন বাড়ে না কমে এ নিয়ে অনেকে দ্বন্দ্বে ভোগেন।তবে কলা খেলে কী ওজন কমে। হ্যা কলা খেলে ওজন কমে। কারণ ফাইবার সমৃদ্ধ কলা খেলে অনেকক্ষণ পেট ভরা অনুভূত হয়। তখন অন্য খাবার খাওয়ার আগ্রহ কমে যায়। এতে ওজন বাড়ার আশঙ্কাও কমে।

অন্য ফলের চেয়ে কলায় শর্করার পরিমাণ বেশি। এক কাপ পরিমাণ কলায় ১৩০ ক্যালোরি পাওয়া যায় ।

কলাতে রয়েছে শর্করা, মিনারেল, পটাশিয়াম ও ম্যাগনেশিয়াম। কলা খুব দ্রুত শরীরে এনার্জি এনে দেয়। পটাশিয়াম শরীরের এনজাইমকে সক্রিয় রাখে এবং মাংসপেশিকে কোমল ও মসৃণ করে নার্ভকে সতেজ রাখতে সহায়তা করে।

কলাতে রয়েছে মিনারেল, আয়রন, ভিটামিন ‘সি’ ও ‘ই’সহ বেশ কয়েকটি ভিটামিন। এসব কিছুর মিশ্রণ ক্যানসার প্রতিরোধেও সহায়তা করে। কলায় রয়েছে প্রচুর প্রোটিন এবং শরীরের জন্য প্রয়োজনীয় ৮টি অ্যামিনো অ্যাসিড।

কলা শুধু শরীরের ভেতরকেই ভালো রাখে না, বাইরের সৌন্দর্যকেও বাড়িয়ে তোলে। কলা ছোট-বড় সবার জন্যই উপাদেয়। হলুদ রঙের কলা এনার্জি এনে দেয় এবং পাকস্থলীকে সক্রিয় রাখতেও সাহায্য করে।

কলা খেয়ে ওজন কমানো সম্ভব

কলায় ক্যালোরি আছে এবং এটা মোটা করে সম্পূর্ণ ভুল ধারণা। বরং কলা খেয়ে ওজন কমানো সম্ভব। আমাদের দেশে কলা বিভিন্নভাবে খাওয়া হয়। যেমন কলা দিয়ে তৈরি বিশেষ ধরনের কেক, কলার চিপস, মিল্কশেক, আইসক্রিম, বিস্কুট, কলার সালাদ ইত্যাদি।

ডায়েটেশিয়ানদের মতে, যারা কলা খেতে পছন্দ করেন তারা খাবারের তালিকায় কলা রাখতে পারেন। এটি ওজন কমাতে সাহায্য করবে।সূত্র: হেলদিবিল্ডার্জড

কলা খেতে আরও যে সব উপকারিতা পাওয়া যায়-

১. পটাশিয়াম, খনিজের ভালো উৎস হওয়ায় কলা উচ্চ রক্তচাপ কমায়।

২. পর্যাপ্ত পরিমাণে ফাইবার থাকায় কলা কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করে।

৪. কলায় যদিও শর্করার পরিমাণ বেশি থাকলেও ডায়াবেটিস রোগীরা কলা খেতে পারেন। কারণ এতে থাকা ফাইবার শর্করার পরিমাণ নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করে।

রাজশাহীর সময় ডট কম -১০ সেপ্টেম্বর ২০১৯





© All rights reserved © 2018 rajshahirsomoy.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com