সোমবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০২:০৪ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
কেরানীগঞ্জে ‍১২ বছরের শিশু অন্তঃসত্ত্বা, খালুর ধর্ষণে ঘুমিয়ে হাঁটেন ইলিয়ানা, ভক্তরা বলছেন নায়িকাকে ভূতে ধরেছে কাশ্মীর নিয়ে পরমাণু যুদ্ধের হুঁশিয়ারি ইমরানের ! ৩০ লাখ ৫০ হাজর টাকাসহ হুন্ডি ব্যবসায়ী আটক রণবীর কাপুর নয়, রণবীর সিংয়ের সঙ্গেই দেখা যাবে আলিয়াকে! পুলিশকে জনগণের মৌলিক অধিকার, মানবাধিকার ও আইনের শাসনকে গুরুত্ব দিতে হবে: প্রধানমন্ত্রী ভাগ-বাটোয়ারা নিয়ে রাব্বানীর ফোনালাপে তোলপাড় বাংলাদেশকে হারিয়ে টি-টোয়েন্টিতে আফগানদের নতুন ইতিহাস জনগণের মনে পুলিশ সম্পর্কে যেন অমূলক ভীতি না থাকে” প্রধানমন্ত্রী বাঘায় ৪ ইউপি নির্বাচনে মনোনয়নপত্র জমাদানকারি সকল প্রার্থীর মনোনয়ন বৈধ
পাকিস্তানকে দেওয়া অর্থ সাহায্যের ৪৪০ মিলিয়ন ডলার কেটে নিল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র

পাকিস্তানকে দেওয়া অর্থ সাহায্যের ৪৪০ মিলিয়ন ডলার কেটে নিল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে গিয়ে দরবার করে এসেছিলেন পাক প্রধানমন্ত্রী। কিন্তু তাতে চিড়ে ভিজল না। সন্ত্রাসবাদীদের বিরুদ্ধে ঋণের ভারে জর্জরিত পাকিস্তানকে দেওয়া আর্থিক সহযোগিতা ছেঁটে দিল ওয়াশিংটন।

বরাদ্দ অর্থ সাহায্য থেকে ৪৪০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার কমাল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। তা কমিয়ে করে দেওয়া হল ৪.১ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। এর আগে গতবছরের সেপ্টেম্বর ও চলতি বছর জানুয়ারি অর্থ সাহায্যে কাটছাঁট করেছিল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র।

গত মাসে ওয়াশিংটনে ট্রাম্পের সঙ্গে বৈঠকে বসেছিলেন ইমরান খান। তাঁর মার্কিন সফর নিয়ে বিড়ম্বনায় পড়েছিল পাকিস্তান। ট্রাম্পের দেশে প্রথাগত সম্মান পাননি পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী। ওই সফরের তিন সপ্তাহ আগেই আর্থিক সহযোগিতায় কাটছাঁটের কথা জানিয়ে দেওয়া হয়েছিল ইমরান খানকে। বৈঠকে মার্কিন প্রেসিডেন্ট স্পষ্ট বলেছিলেন, ‘পাকিস্তানকে কয়েক বছর ধরে ১.৩ বিলিয়ন মার্কিন ডলার আর্থিক সহযোগিতা করছি। কিন্তু পাকিস্তান আমাদের জন্য কিছুই করেনি। আমাদের বিরুদ্ধে কাজ করছে তারা। গতবছরই তাই আর্থিক সাহায্য বন্ধ করে দিয়েছি।’

পাকিস্তান এনহ্যান্সড পার্টনারশিপ চুক্তি ২০১০ (PEPA) অনুযায়ী, ইসলামাবাদকে আর্থিক সহযোগিতা করে ওয়াশিংটন। ২০০৯ সালের অক্টোবরে কেরি লুগার বারমান আইন পাশ হয় মার্কিন কংগ্রেসে। ওই আইন অনুযায়ী, ৫ বছর ধরে পাকিস্তানকে ৭.৫ বিলিয়ন আর্থিক সহযোগিতা করা হবে।

চলতিবছর জানুয়ারিতে ১ বিলিয়ন মার্কিন ডলার আর্থিক সাহায্য কাটছাঁট করেছিল পেন্টাগন। মার্কিন সংবাদমাধ্যম ফক্স নিউজে প্রতিবেদনে দাবি করেছিল, মার্কিন বিদেশ সচিব জেমস ম্যাটিস ও অন্যান্য আধিকারিকরা মনে করেন, হক্কানি সন্ত্রাসবাদী সংগঠনের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে ব্যর্থ হয়েছে পাকিস্তান। গতবছর সেপ্টেম্বরে সন্ত্রাসদমনে ব্যর্থ হওয়ায় ৩০০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার আর্থিক সহযোগিতা দেওয়ার বন্ধের সিদ্ধান্ত নেয় ওয়াশিংটন।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে গিয়ে দরবার করে এসেছিলেন পাক প্রধানমন্ত্রী। কিন্তু তাতে চিড়ে ভিজল না। সন্ত্রাসবাদীদের বিরুদ্ধে ঋণের ভারে জর্জরিত পাকিস্তানকে দেওয়া আর্থিক সহযোগিতা ছেঁটে দিল ওয়াশিংটন।

বরাদ্দ অর্থ সাহায্য থেকে ৪৪০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার কমাল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। তা কমিয়ে করে দেওয়া হল ৪.১ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। এর আগে গতবছরের সেপ্টেম্বর ও চলতি বছর জানুয়ারি অর্থ সাহায্যে কাটছাঁট করেছিল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র।

গত মাসে ওয়াশিংটনে ট্রাম্পের সঙ্গে বৈঠকে বসেছিলেন ইমরান খান। তাঁর মার্কিন সফর নিয়ে বিড়ম্বনায় পড়েছিল পাকিস্তান। ট্রাম্পের দেশে প্রথাগত সম্মান পাননি পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী। ওই সফরের তিন সপ্তাহ আগেই আর্থিক সহযোগিতায় কাটছাঁটের কথা জানিয়ে দেওয়া হয়েছিল ইমরান খানকে। বৈঠকে মার্কিন প্রেসিডেন্ট স্পষ্ট বলেছিলেন, ‘পাকিস্তানকে কয়েক বছর ধরে ১.৩ বিলিয়ন মার্কিন ডলার আর্থিক সহযোগিতা করছি। কিন্তু পাকিস্তান আমাদের জন্য কিছুই করেনি। আমাদের বিরুদ্ধে কাজ করছে তারা। গতবছরই তাই আর্থিক সাহায্য বন্ধ করে দিয়েছি।’

পাকিস্তান এনহ্যান্সড পার্টনারশিপ চুক্তি ২০১০ (PEPA) অনুযায়ী, ইসলামাবাদকে আর্থিক সহযোগিতা করে ওয়াশিংটন। ২০০৯ সালের অক্টোবরে কেরি লুগার বারমান আইন পাশ হয় মার্কিন কংগ্রেসে। ওই আইন অনুযায়ী, ৫ বছর ধরে পাকিস্তানকে ৭.৫ বিলিয়ন আর্থিক সহযোগিতা করা হবে।

চলতিবছর জানুয়ারিতে ১ বিলিয়ন মার্কিন ডলার আর্থিক সাহায্য কাটছাঁট করেছিল পেন্টাগন। মার্কিন সংবাদমাধ্যম ফক্স নিউজে প্রতিবেদনে দাবি করেছিল, মার্কিন বিদেশ সচিব জেমস ম্যাটিস ও অন্যান্য আধিকারিকরা মনে করেন, হক্কানি সন্ত্রাসবাদী সংগঠনের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে ব্যর্থ হয়েছে পাকিস্তান। গতবছর সেপ্টেম্বরে সন্ত্রাসদমনে ব্যর্থ হওয়ায় ৩০০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার আর্থিক সহযোগিতা দেওয়ার বন্ধের সিদ্ধান্ত নেয় ওয়াশিংটন।

রাজশাহীর সময় ডট কম – ১৭ আগস্ট  ২০১৯র





© All rights reserved © 2018 rajshahirsomoy.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com